সম্মানিত দর্শক আপনাকে স্বাগতম। আমাকে Facebook Google+ এ পাবেন। কামরুলকক্স: Clean Pendrive from Virus- আপনার পেনড্রাইভকে করুন ভাইরাস ফ্রি,সাথে কম্পিউটারও

Clean Pendrive from Virus- আপনার পেনড্রাইভকে করুন ভাইরাস ফ্রি,সাথে কম্পিউটারও




ভাইরাস, ভাইরাস, ভাইরাস! পুরো পেনড্রাইভ ভাইরাস! দোস্ত কি করি এখন? আমার এক বন্ধু ফোন করে বলল এই কথা খুব বিরক্ত হয়ে জানতে চায় সে এখন কি করবে আমি জিজ্ঞাস করলাম কি সমস্যা খুলে বলো বলল-আমার পেনড্রাইভে অনেক ফাইল আর ফোল্ডার ছিল কিন্তু এখন একটাও নায় কোন কিছু ঢুকালেও তা হারিয়ে যায় আমার ফাইলের মত কতগুলো ফাইল আছে, তাতে ডাবল ক্লিক করলেও কোন Response নায় ফোন করে বিস্তারিত জানতে পারলাম তার পেনড্রাইভে Shortcut, Autorun.inf, vbs, dll, exe সহ বেশ কিছু ফাইল রয়েছে যার সম্পর্কে সে কিছুই জানে না আর তার আসল ফাইলগুলো হাইড হয়ে আছে এরকম সমস্যায় শুধু আমার বন্ধু নয় বরং বর্তমানে অনেক ব্যবহার কারীই আছেন


কারণঃ
কারণটা আর কিছুই নয়, ভাইরাস! হ্যাঁ, আপনার Windows ভাইরাসে আক্রান্ত Virus আক্রান্ত পিসিতে যখন আপনি পেনড্রাইভ ঢুকান তখন ঐ ভাইরাস/ভাইরাসগুলো আপনার পেনড্রাইভে অটোমেটিক Autorun.inf, vbs, dll, exe ইত্যাদি ফাইল তৈরি করে শুধু তাইনা, আপনার ফাইলগুলো হাইড করে একই নামে পেনড্রাইভে আর কতগুলো ফাইল তৈরি করে আপনার ব্যক্তিগত ফাইল মনে করে যখন ঐ ফাইলগুলো আপনি খুলতে যাবেন তখন ভাইরাসগুলো ছড়িয়ে পড়ে আপনার উইন্ডোজে আর যখন ঐ পেনড্রাইভটি অন্য একটি পিসিতে খুলবেন তখন সাথে সাথে সেই পিসিতেও ভাইরাসগুলো ছড়িয়ে পড়ে এভাবে এক পিসি থেকে আরেক পিসিতে ভাইরাস ছড়াই ভাইরাস এরকম আরো অনেক সমস্যা সৃষ্টি করে থাকে

Step-1, ক্ষণস্থায়ী করণীয়ঃ
ক্ষণস্থায়ীভাবে পেনড্রাইভ থেকে ভাইরাসগুলো দূর করে Hidden Files and Folder গুলো Show করাতে পারেনআপনার USB/Flash Drive/Pendrive/Memory Card টি পিসিতে ঢুকান Ready না হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন Ready হলে নিচের মত আইকন আসবে


USB Ready হওয়ার পর আমার Clean USB টুলটি ডাউনলোড করে রান করুন। নিচের মত আসবে। 

My Computer খুলে আপনার USB/Flash Drive/Pendrive/Memory Card এর Drive Letter টি দেখুন। তারপর সেটি দিয়ে এন্টার চাপুন আর অপেক্ষা করুন কিছুক্ষণ। 


এর মাধ্যমে exe, inf, vbs, cmd, bat, reg, recycler, system volume information ইত্যাদি ফাইল/ফোল্ডার USB/Pendrive হতে Delete হয়ে যাবে এবং আপনার Hide হয়ে যাওয়া আসল ফাইল/ফোল্ডারগুলো Show করবে DOS Window চলে যাওয়ার পর আপনার USB/Flash Drive/Pendrive/Memory Card টি খুলতে পারবেন Clean করার আগে কোনভাবেই USB/Flash Drive/Pendrive/Memory Card খুলতে যাবেন না প্রয়োজনে টুলটি একাধিকবার রান করুন। কিছু কিছু ভাইরাস আছে প্রতিটা ফোল্ডারেই ঢুকে পড়ে সে ক্ষেত্রে Clean Virus টুলটি Run করতে পারেন প্রতিটি ফোল্ডারে


Step-2, স্থায়ী করণীয়ঃ
যদি আপনি দেখেন যে আপনার পিসিতে কোন পেনড্রাইভ ঢুকালেই সাথে সাথে এ সমস্যাটি হচ্ছে তাহলে আপনি নিশ্চিত হতে পারেন যে আপনার Windows ভাইরাসে আক্রান্ত Antivirus Installed থাকলেও তার Security নষ্ট হয়েগেছে এবং সেটি আপনাকে এখন আর কোন ধরনের নিরাপত্তা দিতে সক্ষম নয় সুতরাং আপনার Antivirus টি যতই শক্তিশালী হোক না কেন আপনি ওটার উপর আর নির্ভর করবেন না নিচের কাজগুলো করুন। 


১। আপনার বর্তমান Installed Antivirus Fully Un-Install করে PC Restart দিন একবার।

২। এবার আপনার পছন্দের যেকোন একটি নতুন Antivirus Install করুন বর্তমানে ফ্রীতে ব্যবহার করার জন্য অনেক Free Antivirus রয়েছে পছন্দমত একটি ব্যবহার করতে পারেন। এক্ষেত্রে আপনার পিসিতে থাকা কোন পুরাতন Antivirus ব্যবহার করবেন না বা অন্য কারো কাছ থেকে সংগ্রহ করাটাও ব্যবহার করবেন না আমার পরামর্শ হলো সম্পূর্ণ নতুন ডাউনলোড করা Antivirus ই ব্যবহার করুন। যদি আপনি নেট ব্যবহার না করেন তাহলে অন্য কোথাও গিয়ে Antivirus টি Download করে আনুন আপডেট ফাইল সহ আমি এ কাজে MSE ব্যবহার করি।

৩। Antivirus Installed এর পর Update করে নিন।

৪। PC Restart দিন এবং Safe Mode Windows Run করুন

৫। Safe Mode Windows Run করার পর নতুন Installed করা Antivirus টি দিয়ে PC Full Scan দিন এবং Scan শেষ হওয়া পর্যন্ত কোন কাজ না করে অপেক্ষা করুন।

৬। Virus পেলে তা Clean করুন এবং পিসি Restart দিয়ে Test করে দেখুন ভাইরাস সমস্যা দূর হয়েছে কি না

৭। উপরের ৬ নং কাজটি করার পরও যদি কাজ না হয় তাহলে নতুন করে Windows Setup দিন।

৮। Windows Setup শেষ হওয়ার পর কোন সফটওয়ার ইনস্টল করবেন না Antivirus টি Install করে Update করে নিন। তারপর নতুন Installed করা Antivirus টি দিয়ে PC Full Scan দিন এবং Scan শেষ হওয়া পর্যন্ত কোন কাজ না করে অপেক্ষা করুন। Virus পেলে তা Clean করুন। তারপর Mother Board Driver এবং আপনার প্রয়োজনীয় সফটওয়ার Install করুন। যে সফট্‌ওয়ারগুলো ইনস্টল করবেন তা ভাইরাসমুক্ত কি না আগে নিশ্চিত হয়ে নিন। না হয় পুরাতন সমস্যায় পড়তে পারেন। আশাকরি আপনার ভাইরাস সমস্যার সমাধান হবে এতে।



নোটঃ
১। Safe Mode Windows এর একান্ত জরুরী কিছু Service চালু থাকে মাত্র। তাই এ অবস্থায় ভাইরাস Windows কে তেমন একটা নিয়ন্ত্রণ করতে পারে না। PC Restart দেয়ার পর F8 চাপতে থাকুন অথবা Windows এর Boot Skin দেখা দিলে Power Switch চেপে ধরে পিসি বন্ধ করে দিন বা UPS বন্ধ করে দিন। তাহলে পরবর্তীতে Windows Advanced Menu নিয়ে চালু হবে এবং Safe Mode এ পিসি চালু করার সুযোগ পাবেন।


২। গুরুত্বপূর্ণ System File যদি ভাইরাস দ্বারা আক্রান্ত হয় তাহলে অনেক সময় Antivirus সেটাকে Clean করতে গিয়ে ফাইলটি ডিলিট হয়ে যায় বা অকেজো হয়ে যায়। ফলে Windows এ সমস্যা দেখা দেয়। এ অবস্থায় Windows Repair বা System File Scan করা দরকার হয়ে পড়ে।


সতর্কতাঃ
উপরের কাজগুলো করার পর আশাকরি আপনার সমস্যাটি থাকবে না আর হ্যাঁ, আপনার পেনড্রাইভটি যতবার বাইরের কোন পিসিতে ব্যবহার করবেন ততবারই বাসায় এনে প্রথম এটি চেক করে নেবেন এ জন্য Step-1 প্রয়োগ করুন একবার এতে Hidden Virus File থাকলে তা চলে যাবে Antivirus থাকলেও কাজটি করবেন এটি আপনাকে নিরাপত্তা দেবে USB Vaccine Software টি ব্যবহার করতে পারেন এটি আপনার পেনড্রাইভে এবং Windows Autorun.inf ফাইল তৈরি করা থেকে আপনার পেনড্রাইভটি রক্ষা করবে Autorun.inf ফাইলটি Pendrive/Memory Card/Removable Drive থেকে বিভিন্ন পিসিতে ভাইরাস ছড়িয়ে দেয়। ভবিষ্যতে Virus Free Windows ব্যবহারের চেষ্টা করুন।

0 মন্তব্য:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Comments করার জন্য Gmail এ Sign in করতে হবে।